পুলিশ নিয়োগ ২০২১ সার্কুলার

পুলিশ নিয়োগ ২০২১ সার্কুলার BD Police Job Circular 2021 সম্প্রতি নতুন সার্কুলার প্রকাশ করেছে। বাংলাদেশ পুলিশ বিশ্বের বিভিন্ন সেক্টরেরর অধীনে জনবল নিয়োগ দেওয়া হবে। উক্ত বিজ্ঞপ্তিতে বাংলাদেশের নারী ও পুরুষ উভয় প্রার্থীই অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন। বিস্তারিত নিচের অফিসিয়াল বিজ্ঞপ্তি দেখুন। সেই সাথে সরকারি-বেসরকারি সকল চাকরির খবরাখবর সবার আগে পেতে আমাদের ওয়েবসাইটের সাথেই থাকুন।

এক নজরে দেখে নিন

চাকরির ধরণসরকারি চাকরি
প্রতিষ্ঠানের নামবাংলাদেশ পুলিশ
পদের নামঃপুলিশ কনেস্টবল, এসআই
বয়সঃ১৮ থেকে ২০, ১৯-২৭ বছর
শিক্ষাগত যোগ্যতাএসএসসি/সমমান/স্নাতক
জেলাযে কোন
আবেদন শুরু০৫ ডিসেম্বর ২০২১
আবেদনের শেষ তারিখ২৩ ডিসেম্বর ২০২১
আবেদনের মাধ্যমঅনলাইন

দেখে নিনঃ সকল চলমান চাকরি

পুলিশ নিয়োগ ২০২১ সার্কুলার

পুলিশ নিয়োগ ২০২১ সার্কুলার
বাংলাদেশ পুলিশ নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি
পুলিশ নিয়োগ ২০২১ সার্কুলার
বাংলাদেশ পুলিশ নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি
পুলিশ নতুন নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2021
পুলিশ নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি
পুলিশ নিয়োগ 2021
পুলিশ নিয়োগ

চলমান নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি গুলোঃ

পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট পাওয়ার জন্য প্রয়োজনীয় শর্তাবলীঃ

১। আবেদনকারীর পাসপোর্টে উল্লেখিত স্থায়ী কিংবা বর্তমান ঠিকানার যে কোন একটি অবশ্যই সংশ্লিষ্ট মেট্রোপলিটন / জেলা পুলিশের আওতাধীন এলাকায় অবস্থিত হতে হবে এবং আবেদনকারীকে/ যার জন্য পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট চাওয়া হয়েছে তাকে অবশ্যই ঐ ঠিকানার বাসিন্দা হতে হবে ।

২। মেশিন রিডেবল পাসপোর্টের (এম আর পি) এর ক্ষেত্রে যদি পাসপোর্টে ঠিকানা উল্লেখ না থাকে তবে ঠিকানার প্রমাণ স্বরূপ জাতীয় পরিচয় পত্র/জন্ম নিবন্ধন সনদপত্র/স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর সনদপত্রের ফটোকপি ১ম শ্রেণীর সরকারী গেজেটেড কর্মকর্তা দ্বারা সত্যায়িত করে দাখিল করতে হবে ।

৩। বিদেশে অবস্থানকারী বাংলাদেশী পাসপোর্টধারী কোন ব্যক্তির পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট পাওয়ার জন্য তিনি যে দেশে অবস্থান করছেন সে দেশে বাংলাদেশ দূতাবাস/হাইকমিশন কর্তৃক পাসপোর্টের তথ্য পাতার সত্যায়িত কপি তার পক্ষে করা আবেদনের সাথে দাখিল করতে হবে ।

৪। বিদেশগামী কিংবা প্রবাসী বাংলাদেশী নাগরিক এবং বাংলাদেশে বসবাস করে স্বদেশে/বিদেশে প্রত্যাবর্তনকারী বিদেশী নাগরিকদের জন্য প্রয়োজনীয় পুলিশ ক্লিয়ারেন্স এই অনলাইন সিস্টেমের মাধ্যমে ইস্যু করা হয়।

৫। বাংলাদেশের অভ্যন্তরে চাকুরী কিংবা অন্য কোন কাজে পুলিশ ক্লিয়ারেন্স প্রয়োজন হলে সংশ্লিষ্ট জেলা কিংবা সিটি এসবি শাখায় যোগাযোগ করুন

প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টসঃ

১। অনলাইনে যথাযথভাবে পূরণকৃত আবেদন পত্র ।

২। ১ম শ্রেণীর গেজেটেড কর্মকর্তা দ্বারা সত্যায়িত পাসপোর্টের তথ্য পাতার স্ক্যানকপি অথবা বিদেশে অবস্থানকারী বাংলাদেশী নাগরিকগনের ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট দেশে বাংলাদেশ দূতাবাস কর্তৃক সত্যায়িত পাসপোর্টের তথ্য পাতার স্ক্যানকপি অথবা বিদেশী নাগরিকদের ক্ষেত্রে নিজ দেশের জাস্টিস অব পিস (Justice of Peace) কর্তৃক সত্যায়িত পাসপোর্টের তথ্য পাতার স্ক্যানকপি।

৩। বাংলাদেশ ব্যাংক/ সোনালী ব্যাংকের যে কোন শাখা থেকে (১-৭৩০১-০০০১-২৬৮১) কোডে করা ৫০০/- (পাঁচশত) টাকা মূল্যমানের ট্রেজারী চালান অথবা অনলাইনে ক্রেডিট/ডেবিট কার্ডের মাধ্যমে প্রযোজ্য ক্ষেত্রে নির্ধারিত সার্ভিসচার্জ সহ ফি প্রদান।

আবেদনের নিয়মাবলীঃ

ধাপ : ১ অনলাইন পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট ওয়েবসাইটে নিবন্ধন করে যে কেউ নিজের জন্য অথবা অন্যের পক্ষে পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট এর জন্য আবেদন করতে পারবে। নিবন্ধন করার জন্য এখানে ক্লিক করুন।

ধাপ : ২ নিবন্ধিত ব্যবহারকারী অনলাইন পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট সাইটে লগ-ইন করার পর Apply মেনুতে ক্লিক করে আবেদনপত্রটি যথাযথভাবে পূরণ করুন।।

ধাপ : ৩ আবেদন ফরমের প্রথম ধাপে ব্যক্তিগত বিস্তারিত তথ্য, দ্বিতীয় ধাপে বর্তমান এবং স্থায়ী ঠিকানা পূরণ করুন। আপনার বর্তমান ঠিকানা যে জেলা বা মেট্রোপলিটন এলাকায় অবস্থিত সেই ঠিকানায় পুলিশ ভেরিফিকেশন সম্পন্ন হবে।

ধাপ : ৪ আবেদন ফরমের তৃতীয় ধাপে প্রয়োজনীয় ডকুমেণ্টসমূহের স্ক্যান কপি আপলোড করুন।

ধাপ : ৫ আবেদন ফরমের চতুর্থ ধাপে আপনার এন্ট্রিকৃত সকল তথ্য দেখানো হবে। আবেদনে কোন ভুল থাকলে তা পূর্ববর্তী ধাপসমূহে ফেরত গিয়ে পরিবর্তন করা যাবে। তবে চতুর্থ ধাপে আবেদনটি সাবমিট করার পর আর কোন পরিবর্তন করার সুযোগ থাকবে না।

ধাপ : ৬ চালানের মাধ্যেমে ফি পরিশোধের উপায় এবং পরবর্তী করণীয় সম্পর্কে প্রদত্ত নির্দেশনা অনুসরণ করুন.

পুলিশ হেডকোয়ার্টাস, ঢাকার স্মারক নং-প্রশাসন মূলে রাজবাড়ী পুলিশ বিভাগের আওতাভুক্ত শূন্য পদসমূহ পূরণে লক্ষে সম্পূর্ণ অস্থায়ী ভিত্তিতে জাতীয় বেতন স্কেল-২০১৫ অনুযায়ী নিয়োগের নিমিত্ত রাজবাড়ী জেলার স্থায়ী বাসিন্দাদের নিকট হতে নিম্নবর্ণিত শর্তে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় কর্তৃক প্রবর্তিত নির্ধারিত চাকরির আবেদন ফরমে স্ব-হস্তে পূরণকৃত দরখাস্ত আহ্বান করা যাচ্ছে।

আবেদনপত্র পুলিশ সুপার, রাজবাড়ী এর বরাবর আগামী ২৫/০৬/২০২১ তারিখের মধ্যে অবশ্যই ডাকযোগে পৌছাতে হবে। সরাসরি/কুরিয়ারের মাধ্যমে কোন আবেদনপত্র গৃহীত হবে না। খামের উপরে অবশ্যই পদের নাম লিখতে হবে।

বাংলাদেশ পুলিশ এ ২০২১-২০২২ অর্থ বছরের জন্য পুলিশ ট্রেনিং সেন্টার, টাঙ্গাইলের আওতায় সৃষ্ট নিম্নবর্ণিত পদসমূহে সেবা গ্রহণের নিমিত্তে লোক সরবরাহের লক্ষে সম্পূর্ণ অস্থায়ী ভিত্তিতে সাকুল্য বেতনে আউটসোর্সিং পদ্ধতিতে জনবল গ্রহণের উদ্দেশ্যে দরপত্র আহ্বান করা যাচ্ছে।

আগামী ১৭/০৬/২০২১ বেলা ১২ ঘটিকার মধ্যে পুলিশ ট্রেনিং সেন্টার, টাঙ্গাইলের অফিসে রক্ষিত বক্সে দরপত্র দাখিল করতে হবে। একই তারিখ বেলা ১২ঃ৩০ টায় প্রাপ্ত দরপত্র দাখিলকারীগণের উপস্থিতিতে (যদি কেউ উপস্থিত থাকেন) দরপত্র খোলা হবে ।

সত্যায়নের ক্ষেত্রে অবশ্যই সত্যায়নকারী প্রথম শ্রেণির গেজেটেড কর্মকর্তা হতে হবে এবং কর্মকর্তার সুস্পষ্ট নাম ও পদবিসহ সীল থাকতে হবে। চাকরিরত প্রার্থীদের অবশ্যই যথাযথ কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে আবেদনপত্র পৌছাতে হবে। আবেদনপত্রের অগ্রিম কপি গ্রহণযোগ্য বলে বিবেচিত হবে না। কোটা সম্পর্কিত প্রচলিত সরকারি নীতিমালা অনুসরণ করা হবে ।

আবেদনপত্র গ্রহণ ও বাতিল করার ক্ষেত্রে কোন কারণ দর্শানো ব্যতিরেকে কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত বলে গণ্য হবে। খামের উপরে মোটা অক্ষরে, পদের নাম, বিশেষ কোটা (যদি থাকে) ও বাম পারে আবেদনকারীর পূর্ণ নাম ও ঠিকানা উল্লেখ করতে হবে।

নির্বাচনী পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য প্রার্থীদের কোন প্রকার টিএ/ডিএ প্রদান করা হবে না। কর্তৃপক্ষ কোন কারণ দর্শানো ব্যতিরেকে এ নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির কার্যক্রম স্থগিত, সময় পরিবর্তন ও বাতিল করার ক্ষমতা সংরক্ষণ করেন।

কোন তথ্য গোপন করে বা ভুল তথ্য প্রদান করে চাকরিতে নিয়োগপ্রাপ্ত হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী হবে না। এক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট প্রার্থীর নিয়োগাদেশ বাতিলসহ তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

শারীরিক সক্ষমতা যাচাইয়ের ধাপ: 

দ্বিতীয় ধাপে উত্তীর্ন প্রার্থীকে শারীরিক সক্ষমতা যাচাইয়ের জন্য পর্যায়ক্রমে ৭টি ইভেন্টে অংশগ্রহণ করতে হবে। ইভেন্টগুলো হচ্ছে:-

  • দৌড়
  • পুশ আপ
  • লং জাম্প
  • হাই জাম্প
  • ড্র্যাগিং
  • এবং রোপ ক্লাইমিং।
  • এই ৭টি ধাপের কোনো একটিতে অকৃতকার্য হলে পরবর্তী ধাপের পরীক্ষায় প্রার্থী অংশগ্রহন করতে পারবে না এবং এই ধাপ থেকেই তার পুলিশ কনস্টেবল হওয়ার স্বপ্ন শেষ হয়ে যাবে।

শারীরিক সক্ষমতা ৬ষ্ঠ ধাপ:

পুলিশ নিয়োগে শারীরিক সক্ষমতা যাচাইয়ের ৬ষ্ঠ ধাপে রয়েছে ড্র্যাগিং পরীক্ষা। এই ৬ষ্ঠ ধাপে পুরুষ প্রার্থীদেরকে ১৫০ পাউন্ডের টায়ারকে টেনে ৩০ ফুট দূরত্বে এবং নারী প্রার্থীদের ১১০ পাউন্ড ওজনের টায়ার ২০ ফুট দূরত্বে টেনে নিয়েযেতে হবে। এরপরে রোপ ক্লাইমিং পরীক্ষায় পুরুষ প্র্রার্থীদেরকে ১২ ফিট এবং নারী প্রার্থীকে ৮ ফিট দড়ি বেয়ে ওপরে উঠতে হবে।

লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহন: 

প্রার্থীদের শারীরিক সক্ষমতা যাচাই পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের সকল ডকুমেন্ট নিয়ে লিখিত পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করতে হবে। লিখিত পরীক্ষায়:

  • বাংলা
  • ইংরেজি
  • সাধারণ গণিত
  • সাধারণ বিজ্ঞান, বিষয়ে ৪৫ নম্বরের প্রশ্ন থাকবে।

যারা লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হবে তাদের ১৫ নম্বরের মনস্তাত্ত্বিক এবং মৌখিক পরীক্ষায় অংশ নিতে হবে। এর পরবর্তিতে লিখিত, মৌখিক ও মনস্তাত্ত্বিক পরীক্ষার পর উত্তীর্ণদের পুলিশ ভেরিফিকেশন ও স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হবে। সব পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের চূড়ান্তভাবে প্রশিক্ষণের জন্য অন্তর্ভুক্ত করা হবে।

যেকোনো বিজ্ঞপ্তির পরবর্তী আপডেট পেতে এবং নিত্য নতুন চাকরির খবর পেতে আমাদের সাথে ফেসবুক পেজে যুক্ত হোন। ধন্যবাদ,,,,

তথ্য সূত্রঃ বাংলাদেশের পুলিশ বাহিনী

শেয়ার করে রাখুন

Leave a Reply